এবার ভিডিও কল করবেন জিমেইল দিয়েও

119
ভিডিও কল

বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি: করোনা মহামারির সময় জিমেইলের ব্যবহার বিশ্বব্যাপী বেড়ে গেছে। এখন ব্যক্তিগত কাজ থেকে শুরু করে অফিসের কাজে সবাই এই অ্যাপের ওপর নির্ভরশীল। গুগল মিট, জুম মিটিং থেকে শুরু করে অ্যান্ড্রয়েড ফোন ব্যবহারকারীরা জিমেইল ছাড়া এক মুহূর্তও চলতে পারছেন না। এবার শুধু গুগল মিট, জুম মিটিং, হোয়াটসঅ্যাপের মতো অ্যাপের সাহায্যে ভিডিও কল নয়, জিমেইল চ্যাটের সাহায্যেও ভয়েস কল ও ভিডিও কল করা যাবে। জিমেইল ওয়েব অ্যাপের সাহায্যে ফোন কল, ভিডিও কল করা যাবে। ডেস্কটপ, ল্যাপটপ, অ্যান্ড্রয়েড ফোন, স্মার্টফোন বা অন্যান্য ডিভাইস থেকে এই সুবিধা পাওয়া যাবে। করোনা পরিস্থিতিতে জিমেইলের পাশাপাশি ভিডিও কলিং অ্যাপের প্রতি নির্ভরতাও বেড়েছে সবার। অনেক ক্ষেত্রে ভিডিও কনফারেন্সও করতে হয়। সে কারণেই সবদিক বিবেচনা করে এবার বিশেষ ফিচার নিয়ে আসছে জিমেইল। ভয়েস কল করার ক্ষেত্রে গুগল মিট আর ব্যবহার করতে হবে না। এবার মেইল খুলে রাখলেও ভিডিও কল করা যাবে। গুগলের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, আসছে নভেম্বরে জিমেইলে যুক্ত হবে নতুন ভিডিও ও ভয়েস কল ফিচার। গুগল জানায়, এই ফিচারে কোনো ব্যক্তির অ্যাকাউন্ট বেছে নিয়ে তা ডায়াল করলেই তার ফোনে রিং হবে। যে কোনো স্মার্টফোন থেকে এই ফোন রিসিভ করা যাবে। জিমেইলের নতুন এই ফিচারের অপেক্ষায় আছেন ব্যবহারকারীরা। ইমেইল ব্যবহারকারীদের একটা বড় অংশই এই প্ল্যাটফর্মের ওপর নির্ভরশীল৷ অফিসিয়াল বা আন-অফিসিয়াল কাজের ক্ষেত্রে, অধিকাংশই ব্যবহার করেন জিমেইল৷ করোনা পরিস্থিতিতে অধিকাংশ অফিসই ওয়ার্ক ফ্রম হোমে চলছে। এখন বাড়িতে বসেই অফিসের যাবতীয় কাজ করেন কর্মীরা। তাই জিমেইলের পাশাপাশি ভিডিও কলিং অ্যাপের প্রতি নির্ভরতাও বেড়েছে সবার। বহুক্ষেত্রে ভিডিও কনফারেন্সও করতে হয়। সেই কারণেই সবদিক বিবেচনা করে এবার বিশেষ ফিচার নিয়ে আসছে জিমেইল। কর্মী অফিসে আছেন, না কি ভার্চুয়ালি কাজ করছেন, সে বিষয়টিও জানানোর নতুন অপশন চোখে পড়বে ব্যবহারকারীদের। এ ছাড়াও মিটে দেখা মিলবে ‘কমপ্যানিয়ন মোডের’ যা কনফারেন্স রুমের অডিও-ভিজুয়াল হার্ডওয়্যার ব্যবহার করতে দেবে ব্যবহারকারীকে। মাইক্রোসফট আউটলুকের মতো জিমেইলও সব অফিস যোগাযোগের গেটওয়ে হয়ে উঠেছে। শুধু ইমেইল আর অনিয়মিত বৈঠকের মধ্যে সীমাবদ্ধ নেই বিষয়টি। সরাসরি অফিস অ্যাপসের সঙ্গে গুগলের প্রতিযোগিতায় নামার ঘটনাটি অবাক করার মতো কিছু নয়।