শুক্রবার, ২৩ অক্টোবর ,২০২০

Bangla Version

বাংলাদেশের প্রতিটি জেলা থেকে প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে। প্রতিনিধি হিসেবে কাজ করার জন্য যোগাযোগ করুন (newsroom.somoynews24@gmail.com)

  
SHARE

রবিবার, ০৪ অক্টোবর, ২০২০, ০৬:৪৮:৫২

নেত্রকোনায় দেবী দুর্গার প্রতিমা তৈরিতে ব্যস্ত মৃৎশিল্পীরা

নেত্রকোনায় দেবী দুর্গার প্রতিমা তৈরিতে ব্যস্ত মৃৎশিল্পীরা

 নেত্রকোনা প্রতিনিধি:  আর কিছুদিন পরেই অনুষ্ঠিত হবে হিন্দু ধর্মাবলাম্বীদের সবচেয়ে বড় ধর্মীয় উৎসব শারদীয় দুর্গাপূজা। ইতিমধ্যে শুরু করা হয়েছে নানা প্রস্তুতি। করোনাকালীন নানা সীমাবদ্ধতা থাকলেও পুরোদমে এগিয়ে চলছে দুর্গাপুজার প্রতিমা তৈরির কাজ। এবারে জেলার  ৩০০ পূজামন্ডপে অনুষ্ঠিত হবে শারদীয় দুর্গাপূজা । আগামী ২২ অক্টোবর মহাষষ্ঠী তিথির মধ্য দিয়ে শুরু হবে পূজা অর্চনা ও ২৬ অক্টোবর বিজয় দশমীতে প্রতিমা বিসর্জনের মধ্য দিয়ে শেষ হবে দুর্গোৎসবের আনুষ্ঠানিকতা।পূজার সময় ঘনিয়ে আসার সাথে সাথে ব্যস্ততাা বেড়েছে প্রতিমা শিল্পীদের। জেলার বিভিন্ন পূজামন্ডপ ঘুরে দেখা যায়,কাদা-মাটি, বাঁশ,খড়, সুতলি দিয়ে শৈল্পিক ছোঁয়ায় দেবী দুর্গার প্রতিমা তৈরিতে দিনরাত ব্যস্ত সময় পার করছেন মৃৎশিল্পীরা।জেলা পূজা উদযাপন কমিটির সভাপতি বলেন, মহামারী করোনার প্রভাবে এ বছর সার্বজনীন দুর্গোৎসবের আনন্দ অনেকটাই ম্লান হতে চলছে। এবছর জেলায় পৌরসভাসহ মোট ৩০০টি পূজামন্ডপে দুর্গাপূজা অনুষ্ঠিত হবে। করোনা ভাইরাসের কারনে এবার স্বাস্থ্যবিধি ও সরকারের সব নির্দেশনা মেনে পূজা উৎযাপন হবে। 

এই বিভাগের আরও খবর

  দুর্গাপূজা শুরু

  প্রাণঘাতী করোনার কারণে পুজার উৎসব যাতে অশুভ না হয়: এমপি গোপাল

  মহম্মদপুরে ১১৪টি পুজা মন্ডপে দেবী দূর্গার রুপ দিতে ব্যস্ত ভাস্কর শিল্পরা

  নেত্রকোনায় দেবী দুর্গার প্রতিমা তৈরিতে ব্যস্ত মৃৎশিল্পীরা

  দূর্গা পূজা উপলক্ষে তিনদিনের ছুটি সহ সংখ্যালঘু সুরক্ষা আইন বাস্তবায়নের দাবীতে নওগাঁয় মানববন্ধন অনুষ্ঠিত

  পবিত্র উমরাহ চালু হচ্ছে ৪ অক্টোবর

  কাবা শরিফের আদলে অযোধ্যায় মসজিদ নির্মাণ করা হবে

  আল্লামা শফীর জানাজায় জনসমুদ্র

  ফজর থেকেই হাটহাজারী মাদ্রাসা প্রাঙ্গণে মুসল্লি-আলেমদের ভিড়

  আজ শুভ মহালয়া

  পবিত্র হজের প্রাক-নিবন্ধন চলবে ৩০ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত

https://web.facebook.com/Somoy-news

 

 

 

আজকের প্রশ্ন

জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ বলেছেন,মাদক সম্রাটতো সংসদেই আছে। তাদেরকে বিচারের মাধ্যমে আগে ফাঁসিতে ঝুলান। আপনি কি একমত?